ভালোবাসা জমানো যাবে ব্যাংকে

টাকা পয়সা, গয়না কিংবা মুল্যবান জিনিষ পত্র ব্যাংকে জমা রাখার কথা তো সবাই শুনেছেন। কিন্তু ভালোবাসা ব্যাংকে জমা রাখা যায় ! এটা কেমন কথা!!

নিচক পাগলামী মনে হলেও এমনি একটি ব্যাংক রয়েছে স্লোভাকিয়ার ছোট্র একটি শহরে। যেখানে আপনি জমা রাখতে পারবেন আপনার ভালোবাসার সৃতির জিনিষগুলো।

প্রথম দেখার গিফ্ট থেকে ওয়েডিং রিং পর্যন্ত নিরাপদে জমা রাখতে পারবেন এই ব্যাংকের ভল্টে।

“Love Bank” নামের এই ব্যাংকে পরিমাপ করতে পারবেন আপনার সঙ্গি/সঙ্গিনী আপনাকে কতটুক ভালোবাসে তা ও।

সেজন্য “Love-O-Meter” নামক যন্ত্রেরও ব্যবস্থা রয়েছে ব্যাংকটিতে।

আন্দ্রেজ স্লাদকোভিচের রচিত “মারিনা” নামের কবিতাকে বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ প্রেমের কবিতা হিসেবে ধরা হয়।

১৮৪৬ সালে প্রকাশিত এই কবিতাটিতে রয়েছে মোট ২৯১০ টি লাইন !

মুলত এটি লেখকের নিজের প্রেমকাহনী নির্ভর কবিতা। আন্দেজ ছিলেন বানস্কা স্তিয়াভনিকাস এলাকার মারিনার গৃহশিক্ষক। একসময় শিক্ষক-ছাত্রী ভালোবাসায় জড়ান। তখন আন্দ্রেজ ও মারিয়ার বয়স চৌদ্দর কোঠায়।

কিন্তু বাধসাধল মারিনার বাবা-মা। তারা মেয়েকে ধনী জিঞ্জারব্রেড মেকারের সঙ্গে বিয়ে দেন। এর দুই বছর পর আন্দ্রেজ যাজক হন। বিয়ে করেন এক কেরানীর মেয়েকে ।

শুধু এখানেই শেষ নয়, স্লোভাকিয়ার প্রাইমারি স্কুলে ছাত্র ছাত্রীদের পড়ানো হয় কবিতাটি।

মুলত এই কবিতার প্রতি সম্মান প্রদর্শন করতেই নির্মান করা হয়েছে এই “ভালোবাসা ব্যাংক” ।

শেয়ার করুনঃ
আরো পড়ুনঃ  কুমিল্লায় গায়ে হলুদের গান নিয়ে নিহত ২ জন